আজ বৃহস্পতিবার রাত ১২:৫৪, ২১শে নভেম্বর, ২০১৮ ইং, ৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, ১৩ই রবিউল-আউয়াল, ১৪৪০ হিজরী

আইপিএল-১২ নিয়ে নানান ধোঁয়াশা

নিউজ ডেস্ক | জাগো বার্তা .কম
আপডেট : নভেম্বর ৯, ২০১৮ , ১০:৫১ পূর্বাহ্ণ
ক্যাটাগরি : খেলাধুলা
পোস্টটি শেয়ার করুন

ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক টি-টোয়েন্টি লিগগুলোর মধ্যে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ (আইপিএল) যে সবচেয়ে বেশি জনপ্রিয় তাতে কোনো সন্দেহ নেই। ২০০৮ সালে শুরু হওয়ার পর থেকেই ভারতের এই ঘরোয়া ক্রিকেট লিগকে নিয়ে বাড়তি আগ্রহ। অর্থ আর তারকাদের ছড়াছড়িতে সব সময়ই আলোচনার কেন্দ্রে থেকেছে আইপিএল।

আলোচিত এই টুর্নামেন্টের আগামী আসরটিকে নিয়ে নানান ধোঁয়াশা দেখা যাচ্ছে। ওয়ানডে বিশ্বকাপের ঠিক আগ মুহূর্তে মাঠে গড়ানোর কথা বলেই এতো ধোঁয়াশা। ইংল্যান্ডের মাটিতে আগামী ওয়ানডে বিশ্বকাপ শুরু হওয়ার কথা ২০১৯ সালের ৩০ মে। আর আইপিএল-১২ শেষ হওয়ার কথা রয়েছে ১৯ মে’তে। অর্থাৎ আইপিএল শেষ হওয়ার দশ দিন পরই শুরু হবে ক্রিকেটের সবেচেয়ে বড় টুর্নামেন্ট।

দুই টুর্নামেন্টের মধ্যে এতো কম বিরতির কারণে আগামীর আইপিএল নিয়ে আপত্তি অনেকের। কদিন আগে ভারতীয় অধিনায়ক বিরাট কোহলি বোর্ড সভায় অনুরোধ করেছেন, দলের প্রধান পেসারদের যেন আইপিএল খেলতে না দেওয়া হয়। বিশ্বকাপের সময় পেসারদের তরতাজা পাওয়ার নিশ্চয়তা পেতেই কোহলির এই অনুরোধ। বিষয়টি নিয়ে বিসিসিআই নাকি ফ্র্যাঞ্চাইজিদের সঙ্গে কথা বলার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

এদিকে, ইংল্যান্ড-অস্ট্রেলিয়াও আইপিএল খেলতে আসা ক্রিকেটারদের নানান নিয়মের মধ্যে বাঁধতে চাচ্ছে। বিশ্বকাপের আগে পুরো আইপিএল খেলে ক্রিকেটাররা যাতে ক্লান্ত হয়ে না পড়েন সে বিষয়ে খেয়াল রাখার কথা জানিয়েছে ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড। তেমনটা হলে বলতে হবে, ইংল্যান্ড-অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেটাররা আগামীর আইপিএলে পুরো মৌসুম খেলছেন না।

সবচেয়ে বড় বিষয় আগামী বছর ভারতের সাধারণ নির্বাচন। নির্বাচনকে সামনে রেখে আইপিএল অন্য দেশে আয়োজনের চিন্তাও নাকি করা হচ্ছে। আইপিএল কর্তৃপক্ষ ইঙ্গিত দিয়েছে, নির্বাচনের জন্য ভারতে অস্বাভাবিক অবস্থা তৈরি হলে দক্ষিণ আফ্রিকায় অনুষ্ঠিত হতে পারে আইপিএল-১২। সব মিলিয়ে ১২তম আইপিএলের সামনে একটা ‘হযবরল’ অবস্থা!